ভেজা শরীরে ভিডিও দিয়ে বিতর্কে নুসরাত

টালিউড অভিনেত্রী ও বসিরহাটের সংসদ সদস্য নুসরাত জাহান আবার নতুন আলোচনায়। সম্প্রতি সামাজিক মাধ্যমে এক ভিডিওকে কেন্দ্র করে সংবাদের শিরোনামে এলেন নুসরাত জাহান। কালো পোশাক অভিনেত্রীকে দেখা যাচ্ছে সুইমিংপুলে। ভেজা শরীরের ভিডিও দিয়ে তিনি ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘ঝুঁকি নিলেই গল্প তৈরি হয়’।

এই ভিডিও দিয়ে আবার তিনি নতুন আলোচনায়। কালো পোশাক ভেসে বেড়াচ্ছে জলের মধ্যে। নুসরাতের চোখে কাজল, ভেজা চুল তাঁর পিঠ ছুঁয়েছে। এই ভিডিও দিয়ে আবার তিনি নতুন আলোচনায়। নেটিজেনদের একাংশের প্রশ্ন, ​নিখিল জৈনের সঙ্গে বিচ্ছেদ, যশের সঙ্গে সম্পর্ক, গর্ভধারণ করা, জীবনের এইসব ঘটনা নিয়ে গত কয়েক মাস ধরে খবরের শিরোনাম দখল করেছেন নুসরাত। অনুরাগীরা তার লেখা পড়ে প্রশ্ন করেন, জীবনের এই সিদ্ধান্তগুলোকে তিনি কি ‘ঝুঁকি’-র আখ্যা দিতে চাইছেন? তা হলে কি ‘সিঙ্গল মাদার’ হিসেবে সন্তানের লালন পালন করবেন?

টালিউড অভিনেত্রী নুসরাত জাহানের নতুন ভিডিওতে কটাক্ষের শেষ নেই। ফের নিখিলের সঙ্গে তার সম্পর্ক নিয়ে আক্রমণে ব্যস্ত অধিকাংশ নেটাগরিক। ‘অবিশ্বাসী’, ‘অনেক বড় ঝুঁকি নিয়ে ফেলেছ তুমি। তাই গল্প তৈরি হয়ে গিয়েছে’, ইত্যাদি মন্তব্যে ভরা ভিডিওর মন্তব্য বাক্স। কিন্তু তৃণমূল কংগ্রেসের সাংসদ নিরুত্তাপ। তিনি আগেও জানিয়েছেন, তার জীবন তিনি নিজের মতো করে কাটাতে চান। সমাজের চোখ রাঙানিতে তিনি ভয় পান না।

এর আগে বৈবাহিক জীবন নিয়ে সংসদে ভুল তথ্য দেওয়ার অভিযোগে জনপ্রিয় অভিনেত্রী তৃণমূল এমপি নুসরাত জাহানের বিরুদ্ধে তদন্ত করতে স্পিকারকে চিঠি দিয়েছেন বিজেপির এক নেতা। গত ১৯ জুন লোকসভার অধ্যক্ষ ওম বিড়লাকে চিঠিটি লেখেন উত্তরপ্রদেশের বদায়ুনের বিজেপির এমপি সঙ্ঘমিত্রা মৌর্য। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়া। সঙ্ঘমিত্রার অভিযোগ, নিজের বৈবাহিক জীবন নিয়ে সংসদে ভুল তথ্য প্রদান করেছেন নুসরাত। তাই বসিরহাটের এমপির বিরুদ্ধে এথিকস কমিটির তদন্ত হোক।

প্রসঙ্গত, লোকসভার প্রোফাইলে নুসরাতের স্বামী হিসেবে নিখিল জৈনের নাম উল্লেখ করা রয়েছে। তবে সম্প্রতি অভিনেত্রী দাবি করেন, তিনি নিখিলকে বিয়ে করেননি। এ নিয়ে সব মহলেই জলঘোলা হয়। বিতর্ক রাজনৈতিক অঙ্গনেও ছড়িয়ে পড়ে। সঙ্ঘমিত্রা লোকসভার অধ্যক্ষকে লেখেন— ‘শপথগ্রহণের সময় নিজের নাম নুসরাত জাহান রুহি জৈন বলে উল্লেখ করেছিলেন তৃণমূল এমপি নুসরাত। তবে কয়েক দিন আগে নিজের বৈবাহিক জীবন নিয়ে যে মন্তব্য তিনি করেছেন, তার সঙ্গে প্রোফাইলের তথ্য মিলছে না।’ বিজেপি এমপির দাবি, ব্যক্তিগত জীবনে নুসরাত কী করছেন, তা নিয়ে কেউ নাক গলাচ্ছে না। তবে বৈবাহিক জীবন সম্পর্কে তার সাম্প্রতিক মন্তব্য ইঙ্গিত করছে যে, লোকসভায় তিনি ভুয়া তথ্য পেশ করেছিলেন। এটি অনৈতিক ও বেআইনি

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*